শব্দের বাগানে মালিনী

লিখেছেন - শুভশ্রী রায়

শব্দের বাগানে আমি মালিনী শব্দ আর পংক্তি ছাড়া কোনো কিছু নিজস্ব বাগিচায় সযতনে পালিনি। আমি হেসেছি, কেঁদেছি, কষ্ট পেয়েছি যত সব কিছু বলেছি কবিতায় সতত সৎভাবে, শব্দের সাহায্য নিয়ে। একেকটি শব্দের চারাগাছে স্নেহভরে জল ঢেলেছি আর ওরা পংক্তিতে পংক্তিতে সুখী-অসুখী ডালপালা ছড়িয়ে কাব্য হয়ে গ্যাছে। শব্দের সাহায্যেই আমি প্রকাশ করেছি সমস্ত ক্রোধ, অসাম্যের কাঠামোকে যতটা পারি ধাক্কা দিয়েছি; অন্য কোনো উপায়ে গর্জন করে কখনো আমি শ্রোতা ও পাঠকের মহার্ঘ হাততালি তুলিনি। পরিবর্তন চেয়ে একেকটি শব্দকেই এগিয়ে দিয়েছি বরাবর। কখনো কোনো দিনও আমি বিপ্লবকে দলের গহ্বরে ঢালিনি প্রতিবাদী মোমবাতি জ্বালিনি, যেটুকু পাশা খেলেছি শব্দ নিয়েই, কোনো গূঢ়তর চোরা চাল চালিনি, শব্দের বাগানে আমি উৎসুক মালিনী। ওদেরকে যথাসাধ্য যত্ন করি জল ও হাওয়ার ব্যবস্থা রাখি গাঢ় ছায়া ও অফুরন্ত মায়ায় যথাসাধ্য শব্দ-পালন করি মাত্র; যদি কবিতার ফুল ফোটে, ভালো না ফুটলে নতুন করে জলসিঞ্চন এবং উপযুক্ত মরশুমের প্রতীক্ষা শুরু। কাব্যের ঘোর লাগা অবধি আজ পর্যন্ত শব্দসেবা করে চলেছি, আমৃত্যু শব্দ-পংক্তির উদ্যান সাজাব; কোনো দিন ভুল করেও বলিনি 'আমি কবি এক প্রতিভাশালিনী।'

কবিতা, আবেগ, টান